শ্রমিক লীগের সম্মেলনে প্রধানমন্ত্রী

Google+ Pinterest LinkedIn Tumblr +

ডেক্স রিপোর্ট।।

ক্ষমতাসীন দল আওয়ামী লীগের ভ্রাতৃপ্রতিম সংগঠন জাতীয় শ্রমিক লীগের সম্মেলনে যোগদিয়েছেন আওয়ামী লীগ সভাপতি প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। আজ শনিবার বেলা পৌনে এগারোটার দিকে সম্মেলনে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত হন তিনি।

রাজধানীর ঐতিহাসিক সোহরাওয়ার্দী উদ্যানে অনুষ্ঠিতব্য এই সম্মেলন উদ্বোধন করবেন আওয়ামী লীগ সভাপতি ।

প্রথম অধিবেশনে সাধারণ সম্পাদকের প্রতিবেদন, শোক প্রস্তাব পাঠসহ প্রধান ও বিশেষ অতিথির বক্তব্য শেষে দেয়া হবে দুপুরের বিরতি। পরে ইঞ্জিনিয়ার্স ইনস্টিটিউশন মিলনায়তনে দ্বিতীয় তথা মূল (কাউন্সিল) অধিবেশনে নতুন নেতৃত্ব ঘোষণা করা হবে। এবারের সম্মেলনে সভাপতি ও সাধারণ সম্পাদক পদে স্বচ্ছ ভাবমূর্তির নেতৃত্ব আসবে বলে ধারণা করা হচ্ছে।

এদিকে সকাল থেকে রাজধানীর ঐতিহাসিক সোহরাওয়ার্দী উদ্যানে জড়ো হতে থাকে জাতীয় শ্রমিক লীগের নেতাকর্মীরা।

প্রধানমন্ত্রী উপস্থিত হলে শ্রমিক লীগের নেতাকর্মীরা ‘শেখ হাসিনার আগমন শুভেচ্ছা স্বাগতম’ স্লোগান দেন। স্লোগানের মাধ্যমে সম্মেলনের প্রধান অতিথি ও সংগঠনের সাংগঠনিক নেত্রী শেখ হাসিনাকে অভিবাদন জানান তারা।

পরে জাতীয় সংগীতের মাধ্যমে শ্রমিক লীগের সম্মেলনের আনুষ্ঠানিকতা শুরু করা হয়।

উল্লেখ্য, জাতীয় শ্রমিক লীগ প্রতিষ্ঠিত হয় ১৯৬৯ সালের ১২ অক্টোবর, জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের হাত ধরে। প্রতিষ্ঠার পর অনেক চাড়াই- উতরাইয়ের মধ্যদিয়ে গেছে সংগঠনটি। বঙ্গবন্ধু হত্যাকাণ্ডের পর দলের একাংশ (মিজান) শ্রমিক লীগের মূল নেতাদের নিয়ে আলাদা হয়ে যায়।

পরে ৮০ এর দশকে শ্রমিক লীগ আবার বাকশালের দখলে চলে যায়। শুরু থেকেই এটি আওয়ামী লীগের সহযোগী সংগঠন হিসেবে থাকলেও বর্তমানে ভ্রাতৃপ্রতিম সংগঠন হিসেবে কাজ করছে।

২০১২ সালের ১৯ জুলাই সংগঠনটির সর্বশেষ সম্মেলনে শ্রমিক নেতা শুক্কুর মাহামুদ সভাপতি, ফজলুল হক মন্টু কার্যকরী সভাপতি এবং মো. সিরাজুল ইসলাম সাধারণ সম্পাদক নির্বাচিত হন।

Share.

Leave A Reply