বৃহস্পতিবার, নভেম্বর ২১ .
  • ৭ই অগ্রহায়ণ, ১৪২৬ বঙ্গাব্দ

বুড়িচংয়ে অভিনব কায়দায় মোটর সাইকেল ছিনতাই। অন নিউজ

Google+ Pinterest LinkedIn Tumblr +

বুড়িচং (কুমিল্লা) প্রতিনিধি।। 

কুমিল্লার বুড়িচং উপজেলার ময়নামতি ইউনিয়ন এর ফরিজপুর এলাকা থেকে আনছার সদস্য আছাবুর রহমানের তার পূর্ব পরিচিত একই এলাকার দুই যুবক প্রতারণা আশ্রায় নিয়ে অভিনব কায়দায় মোটর সাইকেল ছিনতাই  করে নিয়ে যাওয়ার ঘটনা ঘটেছে। ১৫ দিনে ও মোটর সাইকেল টি উদ্ধার হয় নি। 

অভিযোগের বিবরনে জানা যায় খাগড়াছড়ি জেলার মাটি রাঙা উপজেলার আজিজ পাড়া নিউ অযোধ্যা, ৯ নং ওয়ার্ডের মৃত আমজাদ হোসেনের ছেলে মোঃ আছাবুর রহমান এক আনছার সদস্য। তিনি বর্তমানে কুমিল্লার মুরাদনগর উপজেলার  মোহনা আবাসিক এলাকায় ভাড়ায় পরিবার নিয়ে বসবাস করেন। তার বর্তমান কর্মস্থল হল ঢাকা ডিএমপি কদম তলী থানায়। আনছার সদস্য আছাবুর রহমান জানান গত ২২ অক্টোবর কর্মস্থল থেকে ৫ দিনের ছুটিতে বর্তমান ভাড়া বাসা মুরাদনগরে আসে। এর পর গত ২৬ অক্টোবর ব্যক্তি গত কাজে তার স্ত্রীকে নিয়ে নিজস্ব মোটর সাইকেল যোগে কুমিল্লা – সিলেট মহাসড়ক বুড়িচং উপজেলার ময়নামতি ইউনিয়নের ফরিজপুর ইংরেজ কবরস্থানের পূর্ব পাশে আসার পর স্বামী ও স্ত্রী দুজনে অবস্হান নেয়। এসময় আনছার সদস্য আছাবুর রহমানের পূর্ব পরিচিত একই এলাকার এবং ময়নামতি হাইওয়ে হোটেল আমতলিতে কর্মরত শ্রমিক মহরম আলীর ছেলে আলামিন ও মহি উদ্দিন  এই আপন ভাই মিলে প্রতারনার আশ্রয় নিয়ে অভিনব কায়দায় তার নিকট থেকে  চাবি ও মোটর সাইকেল টি নিয়ে ১০ মিনিটের মধ্যে ফিরে আসছি বলে তারা চলে এবং আর ফিরে আসেনি। মোটর সাইকেল টির মূল্য প্রায় ১ লক্ষ ৩০ হাজার টাকা। মোটর সাইকেল টি হল ১২৫ সিসি ডিসকভার।মোটর সাইকেল টি নিয়ে আর  ফিরে না আসায় আনছার সদস্য হতাশ হয়ে মোবাইল ফোনে বহু বার যোগা যোগা করার পর আলামিন  তাকে বলে যখন সময় হয় তখন ফিরে আসব । এর পর তারা আর ফিরে আসেনি এবং তার মোটর সাইকেল ফেরত দেয়নি। এই ব্যাপারে আনছার সদস্য কয়েক দিন অপেক্ষা করে আল  আমিন ও মহি উদ্দিন দুই ভাইকে আসামি করে বুড়িচং থানায় একটি অভিযোগ দায়ের করে।

Share.

Leave A Reply