আইনশৃঙ্খলা বাহিনীকে কঠোর হওয়ার নির্দেশ

95

ব্যবসা-বাণিজ্য, দোকান, শপিংমল সীমিত পরিসরে খুলে দেয়ার মধ্যে আইনশৃঙ্খলা রক্ষাকারী বাহিনীকে কঠোর হওয়ার নির্দেশ দেয়া হয়েছে।

বৃহস্পতিবার (৭ মে) গণভবনে প্রধানমন্ত্রীর সভাপতিত্বে মন্ত্রিসভা বৈঠকে করোনা পরিস্থিতি নিয়ে আলোচনার সময় এই নির্দেশনা দেয়া হয় বলে জানিয়েছেন মন্ত্রিপরিষদ সচিব খন্দকার আনোয়ারুল ইসলাম। বৈঠক শেষে সচিবালয়ে প্রেস ব্রিফিং করেন মন্ত্রিপরিষদ সচিব।

করোনাভাইরাস নিয়ে প্রধানমন্ত্রী কোনো নির্দেশনা দিয়েছেন কিনা- জানতে চাইলে মন্ত্রিপরিষদ সচিব বলেন, ‘হ্যাঁ। করোনাভাইরাস নিয়ে বিস্তারিত আলাপ-আলোচনা হয়েছে, আমাদের সবাইকে সাবধানতা অবলম্বন করতে হবে। পার্টিকুলারলি (বিশেষভাবে) সরকার কিছু কিছু জায়গায় ওপেন (খুলে) করে দিয়েছে। এখানে সরকারি পক্ষ থেকে বিভিন্ন এজেন্সিকে খুব স্ট্রিক ভিউতে দায়িত্ব পালন করতে হবে। পাশাপাশি জনসাধরণকে কো-অপারেশন দেয়ার জন্য আহ্বান জানানো হয়েছে।’

তিনি বলেন, ‘কারণ, এ জিনিসটা বুঝতে হবে যে এটা একটা পেনডামিক (মহামারি) এবং কমিউনিটি সাইটটাকে খুব গুরুত্ব দিতে হবে। কারণ জনসাধারণ যদি এই বিষয়ে সম্পৃক্ত না হন এবং তারা যদি কো-অপারেট না করে, তারা যদি নিজেরা সোশ্যাল ডিসটেন্সিং (সামজিক দূরত্ব) যেটা আছে বা সেলফ কোয়ারেন্টাইন আছে, এগুলো যদি যথাযথভাবে তারা মেনে না চলার চেষ্টা করেন, তাহলে কিন্তু করোনাকে নিয়ন্ত্রণে রাখা দুষ্কর হবে।’

খন্দকার আনোয়ারুল ইসলাম বলেন, ‘সেজন্য মন্ত্রিসভা থেকে সর্বসাধারণের কাছে আহ্বান জানানো হয়েছে, সরকারি কর্মচারি বা দায়িত্ব-কর্তব্যে যারা আছেন তারা তো তাদের স্ট্রিক ভিউতে দায়িত্ব পালন করবেন। বাই দিস টাইম অলরেডি একটা সচেতনতা ডেভলপ করে গেছে, সেটা একটু যথাসাধ্য অ্যাপ্লাই করতে হবে।’

আরো পড়ুনঃ
error: Content is protected !!