কুমিল্লা-৫ উপনির্বাচনে প্রার্থী হওয়াতে যেন ‘ফুটানি’ ৪ দিনে ২৯জন আ.লীগের মনোনয়ন সংগ্রহ

নিজস্ব প্রতিবেদক।।

15

জাতীয় সংসদ কুমিল্লা-৫ আসনের উপনির্বাচনে নৌকা প্রতীক পেতে । ইতিমধ্যে গত ৪ দিনে ২৯জন প্রত্যাশী মনোনয়ন পত্র সংগ্রহ করেছেন। তাদের অধিকাংশই ব্যবসায়ী, বুড়িচং-ব্রাক্ষনপাড়ায় নতুনমুখ। এছাড়া বেশ কয়েকজন পেশাজীবিসহ মনোনয়ন প্রত্যাশীর তালিকা দীর্ঘ করেছেন সাবেক ছাত্রনেতারা। মনোনয়ন ফরম কিনেছেন নেতা-কর্মীদের কাছে হাস্যকর ব্যক্তিও রয়েছেন।

রয়েছেন বেশ কয়েকজন ড্যামি প্রার্থী। আগামী ১০ জুন পর্যন্ত মনোনয়নপত্র সংগ্রহ করতে পারবেন আগ্রহীরা। এরই মধ্যে এ সংখ্যা আরও বাড়তে পারে। অতীতে রাজনীতির মাঠে দেখা না মিললেও এমপি পদে দলের ‘টিকেট’ পেতে আগ্রহী প্রার্থীদের সম্পর্কে দলের তৃণমূলের নেতা-কর্মীদের অভিমত তারা মনোনয়ন নয়, প্রার্থী হওয়ার ‘নাম ফুটানীতে’ যেন পাল্লা দিয়ে নেমেছেন।

জানা গেছে, কুমিল­া-৫ আসনের উপনির্বাচনে আওয়ামী লীগের দলীয় মনোনয়ন চাচ্ছেন সদ্য সাবেক এমপিদের সহধর্মিণী,ছোট ভাই সহ দীর্ঘদিন রাজনৈতিক মাঠে চষে বেড়ানো অর্ধ-ডজন স্থানীয় নেতা। রয়েছে কমপক্ষে দুই ডজন ব্যবসায়ী সহ কয়েকজন পেশাজীবি। নাম ফোঁটাতে পোস্টার-পেস্টুন,পত্রিকায় বিজ্ঞাপন ছাপিয়ে মনোনয়ন প্রত্যাশীর তালিকা দীর্ঘ করেছেন সাবেক কয়েকজন ছাত্রনেতা। তৃণমূলের কর্মীরা অভিমত, নেত্রী দলের একজন পরীক্ষিত নেতাকে মনোনয়ন দিবেন। শেষ পর্যন্ত পর্যন্ত মনোনয়ন লড়াইয়ে থাকছেন অর্ধ-ডজন নেতা।

তারা হচ্ছেন সাবেক এমপি আবদুল মতিন খসরুর সহধর্মিণী সেলিমা সোবাহান খসরু,ছোট ভাই আবদুল মমিন ফেরদৌস, জেলা আওয়ামী লীগের যুগ্ম সাধারন সম্পাদক সাজ্জাদ হোসেন, বুড়িচং উপজেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি এড. হাসেম খান,উপজেলা আওয়ামী লীগের সদস্য অধ্যক্ষ আবু সালেক মোহাম্মদ সেলিম রেজা সৌরভ। এছাড়া তরুন প্রজন্মের প্রার্থী হিসেবে কেন্দ্রিয় যুবলীগ নেতা এহতেশাম ভূঁইয়া রুমি, সাবেক কেন্দ্রিয় ছাত্রলীগ নেতা দিদার মো. নিজামুল ইসলাম লবিং চালাচ্ছেন।

গতকাল রবিবার সাবেক এমপি আবদুল মতিন খসরুর সহধর্মিণী সেলিমা সোবাহান খসরু মনোনয়নপত্র দাখিলকালে বুড়িচং উপজেলা চেয়ারম্যান আখলাক হায়দার ও ব্রাক্ষনপাড়া উপজেলা চেয়ারম্যান আবু জাহের সহ দলের বেশ কয়েকজন স্থানীয় নেতা উপস্থিত ছিলেন। তবে দুই উপজেলা চেয়ারম্যানই দলের বিদ্রোহী প্রার্থী হিসেবে বিগত সময় নির্বাচিত হলেও দলের নেতা-কর্মীদের সাথে বেশ সম্পৃক্ততা রয়েছে।

দলের একটি সূত্র জানান, আবদুল মতিন খসরুর অনুসারী বেশ কয়েকজন নেতা নিজেদের নামে মনোনয়ন পত্র সংগ্রহ করলেও অন্য প্রার্থীর মনোনয়ন ঠেকাতে প্রয়াত নেতার সহধর্মিণীকে সমর্থন জানাতে পারেন। গত কয়েকদিনে রাজনৈতিক মেরুকরণে এমনটাই লক্ষ্য করা যাচ্ছে। তবে মূল টার্মকার্ড নেত্রীর হাতে। কেউ কেউ বলছেন শেষ পর্যন্ত সব জল্পনা-কল্পনা ছাড়িয়ে বুড়িচং-ব্রাক্ষনপাড়াবাসীর জন্য থাকতে পারে দলীয় নেত্রী শেখ হাসিনার নতুন চমক।

এদিকে মনোনয়ন পত্র সংগ্রহের পাশাপাশি আওয়ামী লীগের সিনিয়র নেতাদের বাসা-অফিসে গিয়ে লবিং করেছেন মনোনয়নপ্রত্যাশীরা। করোনার কারণে অনেকে নেতাদের সরাসরি না পেয়ে ভিন্ন পন্থায় যোগাযোগ রাখছেন তারা। অনলাইনভিত্তিক যোগাযোগ মাধ্যম ওয়াটস অ্যাপ, ইমুতেও যোগাযোগ রক্ষা করে চলেছেন তারা। অনলাইনে পাঠিয়ে দিচ্ছেন জীবন বৃত্তান্ত (সিভি)।

মনোনয়নপ্রত্যাশীরা দলের জেলার নেতার ও মন্ত্রীদের সঙ্গেও যোগাযোগ বাড়িয়েছেন। তবে মনোনয়ন পেতে আগ্রহীদের দৌড়ঝাঁপ শেষ হতে যাচ্ছে আগামী ১২ জুন। এদিন গণভবনে ওইসব আসনে দলীয় প্রার্থী ঠিক করবেন আওয়ামী লীগের মনোনয়ন বোর্ড- যাতে সভাপতিত্ব করবেন দলটির সভাপতি ও প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। সেই লক্ষ্য ঠিক রেখে এরই মধ্যে গত ৪ জুন থেকে দলীয় মনোনয়ন ফরম বিক্রি করছে আওয়ামী লীগ।

উল্লেখ্য, গত ২ জুন ইসি সচিব মো. হুমায়ুন কবীর খোন্দকার নির্বাচন ভবনে কমিশন সভা শেষে এই কুমিল্লা-৫ সহ দেশের শূন্য তিন আসনের নির্বাচনের তারিখ ঘোষণা করেন।তিনি বলেন, ‘তফসিল অনুযায়ী আসনগুলোতে মনোনয়নপত্র দাখিলের শেষদিন ১৫ জুন, মনোয়নপত্র বাছাই ১৬ জুন, মনোনয়নপত্র প্রত্যাহারের শেষদিন ২৩ জুন, প্রতীক বরাদ্দ ২৪ জুন। আর ভোটগ্রহণ করা হবে আগামী ১৪ জুলাই।’

আরো পড়ুনঃ
error: Content is protected !!