কুষ্টিয়ায় নিখোঁজের আট দিন পর নদী থেকে তরুণের লাশ উদ্ধার

কুষ্টিয়া প্রতিনিধি।।

৬৪

কুষ্টিয়ার মিরপুর উপজেলার তালবাড়িয়া বালিঘাটসংলগ্ন পদ্মা নদী থেকে এক তরুণের ভাসমান লাশ উদ্ধার করেছে পুলিশ। সাগর আহম্মেদ ওরফে বিধান (১৭) নামের ওই তরুণ ৮ জানুয়ারি বাড়ি থেকে বের হয়ে নিখোঁজ হন। সাগর কুষ্টিয়া শহরের জুগিয়া সবজি ফার্ম এলাকার আবদুল গণির ছেলে। তিনি পেশায় শ্রমিক ছিলেন। সোমবার সন্ধ্যাা পর তাঁর লাশ উদ্ধারের পর ময়নাতদন্তের জন্য কুষ্টিয়া জেনারেল হাসপাতালের মর্গে পাঠানো হয়।

সাগরের পরিবার সূত্রে জানা গেছে, ৮ জানুয়ারি সকাল নয়টায় সাগর বাড়ি থেকে বের হন। এর পর থেকে তাঁর ব্যবহৃত মুঠোফোনটি বন্ধ পান পরিবারের সদস্যরা। অনেক খোঁজাখুঁজি করে না পেয়ে তাঁর বাবা আবদুল গণি কুষ্টিয়া মডেল থানায় একটি সাধারণ ডায়েরি (জিডি) করেন।

তালবাড়িয়া এলাকায় পদ্মা নদীতে একটি লাশ ভাসতে দেখে স্থানীয় লোকজন পুলিশকে খবর দেয়। লাশ পাওয়ার খবর ছড়িয়ে পড়লে আবদুল গণি ও তাঁর পরিবারের সদস্যরা সেখানে ছুটে যান। পরনের প্যান্ট ও গেঞ্জি দেখে সাগরকে শনাক্ত করেন তাঁর বাবা।

পাবনার ঈশ্বরদীর লক্ষ্মীকুন্ডা নৌ থানা পুলিশের পরিদর্শক (ওসি) আবদুল হান্নান বলেন, খবর পাওয়ার সঙ্গে সঙ্গে নৌ পুলিশের সদস্যরা ঘটনাস্থলে যান।

কুষ্টিয়া মডেল থানার (ওসি) সাব্বিরুল আলম বলেন, জিডির পরিপ্রেক্ষিতে কয়েকজনকে জিজ্ঞাসাবাদের জন্য থানায় নেওয়া হয়েছে। লাশ উদ্ধারের ব্যাপারে মিরপুর থানায় হত্যা মামলার বিষয়টি প্রক্রিয়াধীন।

আরো দেখুনঃ
error: Content is protected !!