কুষ্টিয়ায় হত্যা মামলায় তিনজনের যাবজ্জীবন

জাহাঙ্গীর হোসেন জুয়েল ,কুষ্টিয়া প্রতিনিধি।।

173
কুষ্টিয়ার বাদাম ব্যবসায়ী হাবিল ব্যাপারীকে হত্যার দায়ে তিনজনের যাবজ্জীবন কারাদন্ড দিয়েছেন আদালত।
মঙ্গলবার বেলা সাড়ে ১১টায় জেলা ও দায়রা জজ আদালতের বিচারক অরূপ কুমার গোস্বামী এ রায় দেন। বাদাম ব্যবসায়ী হবিল ব্যাপারী জামালপুরের বাসিন্দা ছিলেন।
দন্ড প্রাপ্তরা হলেন, ঝিনাইদহ জেলার সদর উপজেলার কুলবাড়ীয়ার মহিউদ্দিন মিয়ার ছেলে রবিউল ইসলাম (৪০), মৃত জয়নাল আবেদীনের ছেলে গোলাম সরোয়ার (৪২) ও কোটচাঁদপুরের মৃত রবিউল ইসলামের ছেলে আনিছুজ্জামান (৫২)। রায় ঘোষণার সময় সরোয়ার এবং আনিছুজ্জামান আদালতে উপস্থিত ছিলেন।
আদালত সূত্রে জানা যায়, ২০১৫ সালের ১৫ অক্টোবর সকাল সাড়ে ৬টায় ইসলামী বিশ্ববিদ্যালয় থানাধীন কুষ্টিয়া-ঝিনাইদহ মহাসড়কের পার্শ্বন্ত ডোবা (শান্তিডাঙ্গা এলাকা) থেকে অজ্ঞাত এক ব্যক্তির গলায় তার পেঁচানো লাশ উদ্ধার করে পুলিশ। এঘটনায় ইবি থানার এস আই নজরুল ইসলাম বাদী হয়ে অজ্ঞাতদের বিরুদ্ধে হত্যা মামলা করেন।
মামলার তদন্ত শেষে ২০১৭ সালের ২৭ এপ্রিল আদালতে চার্জশিট দেয় পুলিশ। সেখানে হত্যার মোটিভ সম্পর্কে বলা হয়, আসামি আনিসুজ্জামান আনিছ, রবিউল ইসলাম ও গোলাম সরোয়ার সরু হবিল ব্যাপারীর এক লাখ ৫৪ হাজার টাকার বাদাম আত্মসাতের লক্ষ্যে পূর্ব পরিকল্পিতভাবে হত্যা করেছে।
কুষ্টিয়া জেলা ও দায়রা জজ আদালতের এ্যাডভোকেট অনুপ কুমার নন্দী সত্যতা নিশ্চিত করে বলেন, কুষ্টিয়া ইবি থানার এই হত্যা মামলাটিতে আসামিদের বিরুদ্ধে আনীত অভিযোগে চার্জ গঠনপূর্বক দীর্ঘ সাক্ষ্য শুনানি শেষে অভিযোগ সন্দেহাতীত প্রমাণিত হয়।  হত্যার দায়ে তাদেরকে যাবজ্জীন কারাদন্ড ও প্রত্যেকের ৫০ হাজার টাকা জরিমানা অনাদায়ে আরও এক বছর সাজার আদেশ দিয়েছেন বিজ্ঞ আদালত।
আরো পড়ুনঃ
error: Content is protected !!