টিকটক বন্ধ লকডাউনের সেরা ঘটনা: মালাইকা

অনলাইন ডেস্ক ।।

46

ভারতে টিকটক বন্ধ করে দেওয়ায় অনেক বড় ও ছোট পর্দার তারকার মাথায় হাত, তবে এখন? মালাইকা ঠিক তার বিপরীত ঘরানার। বরং টিকটক বন্ধ করায় যাঁরা খুশি হয়েছেন, বলিউড তারকা ও মডেল মালাইকা অরোরা তাঁদেরই একজন। টিকটক বন্ধ হওয়ায় দারুণ খুশি ৪৬ বছর বয়সী এই ‘ছাইয়া ছাইয়া’, ‘মুন্নি বদনাম হুয়ি’ গানের নৃত্যশিল্পী। এটিকে লকডাউনে ঘটা সেরা ঘটনা বলেও উল্লেখ করেন তিনি। নিজের ইনস্টাগ্রামে একটা পোস্টের মাধ্যমে মোদি সরকারকে ধন্যবাদ জানিয়ে তিনি লেখেন, ‘টিকটক বন্ধের ঘোষণা এই লকডাউনে আমার শোনা সেরা সংবাদ। অবশেষে আমরা এখন মানুষের উদ্ভট ভিডিওর অংশ হব না।’

তবে বলিউডের ‘টিকটক তারকা’ শিল্পা শেঠি, রীতেশ দেশমুখ, কার্তিক আরিয়ান, আলিয়া ফার্নিচারওয়ালা, জ্যাকুলিন ফার্নান্দেজ বা জারিন খানের নিশ্চয়ই মন ভালো নেই। তাঁরা নিয়মিত টিকটকে সক্রিয় ছিলেন। বিশেষ করে এই লকডাউনে অনেকেরই দিনের একটা বড় সময় কাটছিল টিকটক ভিডিও বানিয়ে বা দেখে। অনেক টিকটক তারকা আছেন, টিকটক ভিডিও বানানো যাঁদের পেশা। প্রায় ২০ কোটি ভারতীয়ের টিকটক অ্যাকাউন্ট ছিল।

মালাইকা অরোরা। ছবি: ইনস্টাগ্রামমালাইকা অরোরা। ছবি: ইনস্টাগ্রামটিকটক, উইচ্যাটসহ চীনা ৫৯টি অ্যাপ বন্ধ করে দিয়েছে ভারত সরকার। এসব অ্যাপ দেশের সার্বভৌমত্ব ও নিরাপত্তার জন্য বিপজ্জনক বলে অভিযোগ তুলে, তা বন্ধ করা হয়েছে। ভারত সরকারের এক বিবৃতিতে বলা হয়েছে, এসব অ্যাপ ভারতের সার্বভৌমত্ব ও অখণ্ডতা, ভারতের প্রতিরক্ষা, রাষ্ট্রীয় সুরক্ষা এবং জনশৃঙ্খলা রক্ষার ক্ষেত্রে ক্ষতিকর। সরকারি ওই বিবৃতিতে আরও বলা হয়েছে, বিভিন্ন সূত্র থেকে তারা অভিযোগ পাচ্ছে, এসব অ্যাপ তথ্য চুরি করে, তা স্থানান্তর করছে।

আরো পড়ুনঃ
error: Content is protected !!