তারকারা কি এখন ফর্সা হওয়ার ক্রিমের বিজ্ঞাপন বন্ধ করবেন?

61

অনলাইন ডেক্স।। পুলিশি নির্যাতনে কৃষ্ণাঙ্গ জর্জ ফ্লয়েড হত্যাকাণ্ডের প্রতিবাদে উত্তাল যুক্তরাষ্ট্র। ওই হত্যাকাণ্ডকে ‘বর্ণবাদী সহিংসতারই ধারাবাহিকতা’ আখ্যা দিয়ে সোচ্চার বিশ্বের শোবিজ অঙ্গনের তারকারাও। বলিউডের যে খ্যাতিমান তারকারা এই হত্যাকাণ্ড ও বর্ণবাদের বিরুদ্ধে সোচ্চার হয়েছেন, তাদের দিকে ইঙ্গিত করে অভিনেতা অভয় দেওল বলেছেন, তারকারা কি এখন ফর্সা হওয়ার ক্রিমের বিজ্ঞাপন বন্ধ করবেন?

নিজের ইনস্টাগ্রামে ‘সামগ্রিক বিশ্লেষণ’ শিরোনামে এক পোস্টে এ কথা বলেন ‘জিন্দেগি না মিলেগি দোবারা’ খ্যাত অভিনেতা। ৪৪ বছর বয়সী এই অভিনেতা তার পোস্টে সবার উদ্দেশে বলেন, আপনি কি মনে করেন, ভারতীয় সেলিব্রিটিরা এখন ফেয়ারনেস ক্রিমকে সমর্থন করা বন্ধ করবেন?’

তার পোস্টে ভারতে ফেয়ারনেস ক্রিম কয়েক বছর ধরে কী পরিকল্পিতভাবে বিকশিত হয়েছে তার একটি সামগ্রিক বিশ্লেষণ তুলে ধরা হয়।

এর আগে ২০১৭ সালেও ফেসবুকে এমন একটি পোস্ট দেন অভয়। সেখানে ফর্সা হওয়ার ক্রিমকে সমর্থন করার জন্য বলিউডের বেশ কয়েকজন তারকার সমালোচনা করেছিলেন। সেই তালিকায় ছিলেন শাহরুখ খান, দীপিকা পাড়ুকোন এবং সোনম কাপুরের মতো অভিনেতা-অভিনেত্রীরা। এই সপ্তাহের শুরুতে বেশ কয়েকজন বলিউড তারকা সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে অনুষ্ঠিত #BlackOutTuesday বিক্ষোভে যোগ দেন এবং যুক্তরাষ্ট্রে পুলিশি নির্যাতনে কৃষ্ণাঙ্গ জর্জ ফ্লয়েডের মৃত্যুর নিন্দা জানিয়ে কালো একটি ছবি শেয়ার করেন।

এর পরিপ্রেক্ষিতে অভয় দেওল ভারতে ঘটা অনাচার ও নিপীড়নের মতো বিষয়ে তারকাদের নির্বাক থাকা নিয়ে প্রশ্ন তোলেন। তিনি তার ইনস্টাগ্রামে লেখেন, এখন ‘জেগে উঠেছেন’ ভারতীয় সেলিব্রিটি এবং মধ্যবিত্তরা। যুক্তরাষ্ট্রে বর্ণবাদবিরোধী লড়াইয়ে সংহতি প্রকাশ করেছেন। সম্ভবত তারা নিজেদের ঘরের সমস্যা দেখতে পান না!

ভারতে অভিবাসী, সংখ্যালঘু ও দরিদ্র জনগোষ্ঠীর অবিচারের শিকার হওয়ার বিষয়টির দিকে ইঙ্গিত করে অভয় হ্যাশট্যাগ জুড়ে দেন: #migrantlivesmatter, #minoritylivesmatter, #poorlivesmatter.”

আরো পড়ুনঃ
error: Content is protected !!