তেঁতুলিয়ার সীমান্ত এলাকায় বিএসএফের হাতে দুই বাংলাদেশী যুবক আটক

পঞ্চগড় প্রতিনিধি।।

৩২২

পঞ্চগড়ের তেঁতুলিয়া উপজেলার বাংলাদেশ- ভারত সীমান্ত থেকে গত দুদিনে মোহাম্মদ জামাল (২৮) ও মোহাম্মদ মাসুদ (১৮) নামে দুই বাংলাদেশী যুবকে আটক করেছে বিএসএফ। সীমান্ত অতিক্রম করে অবৈধপথে ভারতে প্রবেশের অভিযোগ তুলে তাদেরকে আটক করে ভারতীয় সীমান্ত রোক্ষী বাহিনী।

জানাগেছে, আটক মোহাম্মদ জামালের বাড়ি পঞ্চগড়ের তেঁতুলিয়া উপজেলার বাংলাবান্ধা ইউনিয়নের কাশিমগঞ্জ গ্রামে। অপরজন মোহাম্মদ মাসুদের বাড়ি পাশ্ববর্তী জেলা ঠাকুরগাঁওয়ের হরিপুর উপজেলায়। পরে তাদের আইনি প্রক্রিয়া শেষে ফাঁসিদেওয়া থানা পুলিশের হাতে তুলে দেয় বিএসএফ। ভারতীয় পুলিশ জামাল ও মাসুদকে অবৈধভাবে ভারতে অনুপ্রবেশের দায়ে আটক দেখিয়ে ভারতের শিলিগুড়ি মহকুমা আদালতে পাঠায়।

জানা যায়, বাংলাদেশের তেঁতুলিয়া উপজেলার রনচন্ডি/গোয়াল গছ সীমান্তের কাটাতার অতিক্রম করে ভারতের দার্জিলিং জেলার ফাঁসিদেওয়া মানগছ সীমান্ত এলাকায় গত সোমবার (১০ জানুয়ারি) জামালকে আটক করে । এবং মঙ্গলবার (১১ জানুয়ারি) মাসুদকে ফাঁশিদেওয়া ধনিয়ামোর এলাকায় ঘোরাঘুরি করার সময় আটক করে বিএসএফ।

গোপন সূত্র বলছে, পঞ্চগড়ে সীমান্তে চোরাকারবারীর সাথে প্রায় অর্ধশত দল জড়িত থাকলেও তাদের মধ্যে জামাল ও মাসুদ সহ তেঁতুলিয়া উপজেলার প্রায় ২০ জনের একটি দল দীর্ঘদিন থেকে সীমান্তে গরু চোরাকারবারী করে আসছে। গত সোমবার তারা গরু পাচারের উদ্দেশ্যে সীমান্তের কাটাতার অতিক্রম করে ভারতে প্রবেশ করে।

এ বিষয়ে জানতে চাইলে তেঁতুলিয়া মডেল থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) আবু সায়েম মিয়া বলেন, আমাদের কাছে এমন কোন খবর আসেনি। বা আমাদের তেঁতুলিয়া কেউ অভিযোগ করেনি।

পঞ্চগড়-১৮ বিজিবি ব্যাটালিয়নের অধিনায়ক লেফটেন্যান্ট কর্নেল গোলাম ফজলে রাব্বি বলেন, পরিবারের পক্ষ থেকে কেউ এখনো অভিযোগ করেনি এবংকি থানায় মিসিং রিপোর্টও করেনি। অন্যদিকে বিএসএফ এ বিষয়ে আমাদের কোন কিছু জানায়নি। তারা আমাদের জানালে তাদের সাথে যোগাযোগ করা হবে। তিনি আরো জানান, চোরাকারবারীরা সব সময় বিজির চোখ ফাকি দিয়ে সীমান্ত অতিক্রম করছে। কখন কি ঘটছে তা মুহূর্তে জানা সম্ভব হচ্ছে না।

আরো দেখুনঃ
error: Content is protected !!