পঞ্চগড়ে যুবককে গলাকেটে হত্যার চেষ্টা

ডিজার হোসেন বাদশা, পঞ্চগড় প্রতিনিধি।।

82

পঞ্চগড়ের সদর উপজেলায় গলাকাটা আহত অবস্থায় লাবু (১৮) নামে এক যুবককে উদ্ধার করা হয়েছে। এঘটনায় ঘটনার পর ঘটনাকে কেন্দ্রকরে তদন্তে তৎপর রয়েছে পঞ্চগড় সদর থানা পুলিশ।গত শনিবার ( ৯ জানুয়ারি) রাতে পঞ্চগড় সদর উপজেলার ধাক্কামারা ইউনিয়নের মীরগড় আমতলা এলাকায় ফাঁকা রাস্তা থেকে তাকে উদ্ধার করা হয়।

আহত যুবক লাবু সদর উপজেলার চাকলারহাট ইউনিয়নের হুজারীপাড়া এলাকার মঞ্জুরুল ইসলামের ছেলে। এবং সে পেশায় একজন ব্যাটারি চালিত অটোর চালক।পুলিশ জানায়, রাতে আমতলা নাম এলাকায় লাবু নামে ওই যুববকে কে বা কারা গলায় ছুরি দিয়ে যখম করে রক্তাক্ত অবস্থায় ফেলে পালিয়ে যায়। পরে স্থানীয়রা তাকে আহত অবস্থায় পড়ে থাকতে দেখে স্থানীয় ভিওপির (বিজিবি) সদস্যদের জানালে বিজিবি ঘটনাস্থলে গিয়ে পঞ্চগড় ফায়ার সার্ভিসকে খবর দেয়। ফায়ার সার্ভিসের সদস্যরা দ্রুত আহত অবস্থায় লাবুকে উদ্ধার করে পঞ্চগড় আধুনিক সদর হাসপাতালে ভর্তি করলে অবস্থার অবনতি ও শ্বাসনালী কেটে যাওয়ায় তাকে উন্নত চিকিৎসার জন্য কর্তব্যরত চিকিৎসক ডা. কাউসার আহমেদ রংপুর মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে প্রেরণ করে৷ বর্তমানে রংপুরে চিকিৎসাধীন রয়েছে ওই যুবক।

পঞ্চগড় ফায়ার সার্ভিসের স্টেশন অফিসার নিরঞ্জন সরকার জানান, প্রথমে তার পরিচয় জানা না গেলেও পরে তার পরিচয় জানা যায়। তার বাড়ি চাকলারহাট ইউনিয়নের হুজারী পাড়ায়। এবিষয়ে পঞ্চগড় সদর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি, তদন্ত) জামাল হোসেন জানান, ঘটনার কারন এখনও জানা যায়নি। আমাদের তদন্ত চলছে তদন্ত সাপেক্ষ জড়িতদের খুজে আইনের আওয়াতায় নিয়ে আসা হবে।

আরো পড়ুনঃ
error: Content is protected !!