‘ফুটবল ছাড়া জীবন যেন পানি ছাড়া মাছ’

অনলাইন ডেক্স।।

16
জাতীয় দল এবং আবাহনীর স্ট্রাইকার নাবিব নেওয়াজ জীবন হোম কোয়ারেন্টাইনের দিনগুলিতে ফুটবলকেই বেশি মিস করছেন। এই নাম্বার নাইনের ভাষায়, ‘ফুটবল ছাড়া জীবন পানি ছাড়া মাছের মতো।’
জাতীয় দলের ও ক্লাবের অনুশীলন বন্ধ হয়ে যাওয়ায় এখন নিজ বাড়ীতে অবস্থান করছেন জীবন। ঘরের মধ্যে হালকা ব্যায়াম ছাড়া ফিটনেস ধরে রাখতে তেমন কিছু করার সুযোগ পাচ্ছেন না দেশের বর্তমান সময়ের এই নাম্বার ওয়ান স্ট্রাইকার। ঘরে বসে অনেকটা অলস সময়ই কাটাচ্ছেন তিনি।
করোনাভাইরাসের কারণে বিশ্বকাপের বাছাইয়ের ম্যাচ স্থগিত হয়ে গেলে প্রথমে জাতীয় দলের এবং প্রিমিয়ার লিগ স্থগিত হলে পরে আবাহনীর অনুশীলন কার্যক্রমও বন্ধ হয়ে যায়। এরপর থেকে ফুটবলাররা আছেন যে যার বাড়িতে। একমাত্র বিদেশি কোচ আর খেলোয়াড়রা আছেন ক্লাবের অধীনে। স্থানীয় ফুটবলাররা ঘরে বসেই যে যেভাবে পারছেন ফিটনেস ধরে রাখার চেষ্টা করছেন। লন্ডন থেকে কোচ জেমি ডে’র দেয়া নির্দেশনা ফলো করার চেষ্টা করছেন সবাই।
করোনাভাইরাসে হোম কোয়ারেন্টাইানে থাকার সময়টা কাটানো প্রসঙ্গে জাতীয় দলের স্ট্রাইকার বলেছেন, ‘খুবই অলস সময় অতিক্রম করছি। খেলা নেই, অনুশীলন নেই। এমনকি বাড়ির বাইরে যাওয়ার সুযোগও নেই। এক কথা করোনাভাইরাস ঘরের মধ্যে বন্দি করে রেখেছে আমাদের সবাইকে। কষ্টের সঙ্গেই দিনগুলো অতিক্রম করতে হচ্ছে। আশা করি, সহসাই পরিস্থিতি স্বাভাবিক হবে। সবকিছু আগের মতো হবে। মানুষ আবার সাধারণ জীবনে ফিরবে, নিয়মিত কর্মব্যস্ততায় ফিরবে। তখন আমরাও ফিটনেস ধরে রাখার কাজটা শুরু করতে পারবো।’
ঘরে বন্দি থাকলেও জাতীয় দলের কোচ জেমি ডে এবং আবাহনীর কোচ মারিও লেমস নিয়মিত যোগাযোগ রাখছেন। কিভাবে এ সময়ে ফিটনেস ধরে রাখা যায় সে পরামর্শ দিচ্ছেন। দুই কোচের নির্দেশনা অনুসরণের চেষ্টা করছেন নাবিব নেওয়াজ জীবন।
আরো পড়ুনঃ