বিপিএলে থাকছে না কুমিল্লা ভিক্টোরিয়ান্স

অনলাইন ডেস্ক।।

৪৯৮

বিপিএলের প্রতিষ্ঠিত ফ্র্যাঞ্চাইজিদের দাবি ছিল দীর্ঘ মেয়াদে চুক্তিবদ্ধ হওয়া। দেরিতে হলেও আগামী তিন বছরের জন্য একটি স্লট বের করেছে বিসিবি। পরবর্তী তিন আসরের দিন-তারিখও ঘোষণা করে দিয়েছে। এরপরও বেক্সিমকো ঢাকা, জেমকন খুলনা ও কুমিল্লা ভিক্টোরিয়ান্স ফ্র্যাঞ্চাইজি হচ্ছে না।

বিসিবির বিজ্ঞপ্তি অনুযায়ী মঙ্গলবার ছিল ফ্র্যাঞ্চাইজি হতে আগ্রহ প্রকাশের শেষ দিন। বেধে দেওয়া সময়ে ৯টি প্রতিষ্ঠান ফ্র্যাঞ্চাইজির জন্য আবেদন করেছে। বিস্ময়কর হলেও বর্তমান চ্যাম্পিয়ন কুমিল্লা ভিক্টোরিয়ান্স দরপত্রে অংশ নেয়নি। তবে তিন বছর পর বিপিএলে ফিরছে বসুন্ধরা গ্রুপ।

বিসিবি সূত্রে জানা গেছে, রংপুর রাইডার্সের জন্য আবেদন করেছে বসুন্ধরা গ্রুপের টগি স্পোর্টস লিমিটেড। টুর্নামেন্টের বর্তমান রানার্সআপ ফরচুন বরিশাল চেয়েছে ফরচুন সুজ লিমিটেড। প্রগতি গ্রিন অটো রাইস মিলস সিলেট সানরাইজার্সের ফ্র্যাঞ্চাইজি। মাইন্ড ট্রি লিমিটেড খুলনার সঙ্গেই থাকছে। চট্টগ্রামের ফ্র্যাঞ্চাইজি আখতার গ্রুপের প্রতিষ্ঠান ডেল্টা স্পোর্টস আগ্রহ দেখিয়েছে। রাজশাহীর হয়ে শিরোপা জেতা বৈশাখী গ্রুপ ফিরছে লম্বা বিরতি দিয়ে।

এ ছাড়া ফিউচার স্পোর্টস বাংলাদেশ লিমিটেড, রূপা গ্রুপ ও মোনার্ক হোল্ডিংস লিমিটেড ফ্র্যাঞ্চাইজি হতে আগ্রহ প্রকাশ করেছে। ৯টি প্রতিষ্ঠান আবেদন করলেও ফ্র্যাঞ্চাইজি নেওয়া হবে সাতটি। যাচাই-বাছাইয়ের পর সেরা প্রতিষ্ঠানগুলোকে পর্যায়ক্রমে সাক্ষাৎকারে ডাকা হবে। তবে অভিজ্ঞতায় এগিয়ে থাকা ফরচুন বরিশাল, সিলেট সানরাইজার্স, রংপুর রাইডার্স, খুলনা টাইগার্স, চট্টগ্রাম চ্যালেঞ্জার্সের ফ্র্যাঞ্চাইজিরা অগ্রাধিকার পাবেন বলে জানান বিপিএল সংশ্নিষ্ট একজন কর্মকর্তা। বাকি চারটি প্রতিষ্ঠান থেকে যে কোনো দুটিকে বেছে নেওয়া হতে পারে।

বিপিএলের জন্য বড় ক্ষতি কুমিল্লা ভিক্টোরিয়ান্স জেমকন গ্রুপ ও বেক্সিমকো গ্রুপ ফ্র্যাঞ্চাইজি হতে আগ্রহ প্রকাশ না করা। এই তিনটি প্রতিষ্ঠানই বিপিএলের লভ্যাংশ ভাগাভাগির প্রস্তাব দিয়েছিল। বিসিবি তাতে রাজি না হওয়ায় জেমকন ও বেক্সিমকো গত বিপিএলেও দল কেনেনি। জেমকন গ্রুপের অন্যতম মালিক কাজী ইনাম আহমেদ সমকালকে বেশ আগে জানিয়েছিলেন, লভ্যাংশ ভাগাভাগি না হলে বিপিএলে ফিরবেন না তাঁরা।

তিনি বলেছিলেন, ‘প্রতিটি ফ্র্যাঞ্চাইজি লিগে লভ্যাংশ ভাগাভাগি হয়। পিএসএল থেকে আয়ের বড় অংশ দেওয়া হয় ফ্র্যাঞ্চাইজিদের। বিপিএলকেও প্রতিষ্ঠিত করতে হলে লভ্যাংশ ভাগাভাগি করতে হবে।’ কুমিল্লা ভিক্টোরিয়ান্সের চেয়ারম্যান নাফিসা কামাল ক্রিকেট অন্তঃপ্রাণ একজন সংগঠক। গত আসরে শিরোপা জয়ের পর সংবাদ সম্মেলনে তিনি বলেছিলেন, বিপিএলের সঙ্গে সব সময় থাকতে চান তিনি। সেই চ্যাম্পিয়ন দলের পিছিয়ে যাওয়া বিস্মিত করেছে বিসিবি কর্মকর্তাদের।

ঢাকা ডায়নামাইটসের ফ্র্যাঞ্চাইজি সিইও ওবায়েদ রশিদ নিজামের প্রতিক্রিয়া জানতে চাওয়া হলে তিনি বলেন, ‘দুঃখজনক হলেও সত্যি, বেক্সিমকো এবারও থাকছে না।’ খোঁজ নিয়ে জানা গেছে, এই বড় তিনটি প্রতিষ্ঠান মুখ ফিরিয়ে নেওয়ার পেছনে বড় একটি কারণ হলো দক্ষিণ আফ্রিকা, পাকিস্তানের পিএসএল, আমিরাতের নতুন ফ্র্যাঞ্চাইজি টি২০, অস্ট্রেলিয়ার বিগ ব্যাশ কাছাকাছি সময়ে সূচি রাখায় বিদেশি ক্রিকেটার পাবে না বিপিএল। বিদেশি তারকা ক্রিকেটারদের সবাই অন্য ফ্র্যাঞ্চাইজি লিগে চুক্তিও করে ফেলেছেন। তাই অখ্যাত বিদেশি ক্রিকেটাদের নিয়ে খেলতে হবে বিপিএল।

আরো দেখুনঃ
error: Content is protected !!