মারা গেছেন কানাডার সাবেক প্রধানমন্ত্রী জন টার্নার

65

অনলাইন ডেস্ক।। স্বল্প মেয়াদে কানাডার ১৭তম প্রধানমন্ত্রী হিসেবে দায়িত্ব পালনের আগে দেশটির বিচার ও অর্থমন্ত্রীর দায়িত্ব সামলানো ৯১ বছর বয়সী জন টার্নার মারা গেছেন। লিবারেল পার্টির এই রাজনীতিবিদ স্থানীয় সময় শুক্রবার দেশটির সাবেক এই প্রধানমন্ত্রীর শেষ নিঃশ্বাস ত্যাগ করেন বলে জানিয়েছে তার পরিবার।

জন টার্নারের সাবেক উপদেষ্টা ও পারিবারিক বন্ধু মার্ক কিয়েলি পরিবারের পক্ষ থেকে এ খবর নিশ্চিত করে শনিবার বলেন, টরেন্টোতে নিজ বাসভবনে ঘুমন্ত অবস্থায় শুক্রবার রাতে শন্তিপূর্ণভাবে মৃত্যুবরণ করেন তিনি।

১৯৮৮ সালে মাত্র ৭৯ দিন তিনি কানাডার প্রধানমন্ত্রী হিসেবে দায়িত্ব পালন করেন। তবে নানা জটিলতায় প্রধানমন্ত্রী হিসেবে ব্যর্থ হন তিনি। এরপর ক্ষমতা ছাড়তে হয় তাকে। ১৯৪৯ সালে ইউনিভার্সিটি অব ব্রিটিশ কলম্বিয়া থেকে স্নাতকোত্তর টার্নার রোডস স্কলারশিপ নিয়ে পড়াশোনা করেছে অক্সফোর্ড বিশ্ববিদ্যালয়ে।

আইন পড়া শেষে ১৯৬২ সালে তিনি কানাডার মন্ট্রিলে বসবাস শুরু করেন। এরপর সেখানে আইন পেশা চর্চার সঙ্গে রাজনীতিতে সম্পৃক্ত হন। টার্নার ১৯৬৮ থেকে ১৯৭৫ সাল পর্যন্ত কানাডার সাবেক প্রধানমন্ত্রী পিয়ের ট্রুডোর মন্ত্রিসভায় বিচার বিষয়ক মন্ত্রণালয় ও অর্থ মন্ত্রণালয়ের মন্ত্রী হিসেবে দায়িত্ব পালন করেন।

ব্রিটিশ দৈনিক গার্ডিয়ানের অনলাইন প্রতিবেদনে বলা হচ্ছে, লিবারেল পার্টির নেতা এবং কানাডার নতুন প্রধানমন্ত্রী হিসেবে ১৯৮৮ সালের নির্বাচনে বাজেভাবে তিনি ব্রায়ান মুলরোনির কাছে হেরে যান। কানাডা-যুক্তরাষ্ট্র মুক্ত বাণিজ্য চুক্তির কারণে তিনি হেরে যান। জন টার্নার ছিলেন এই চুক্তির ঘোরবিরোধী।

আরো পড়ুনঃ
error: Content is protected !!