সেদ্ধ ভাত খান, এটা লাটসাহেবি দেখানোর সময় নয়

অনলাইন ডেস্ক।।

23
তাঁর লাইফ স্টাইল অতি সাধারণ ৷ সাধারণ তাঁর ডায়েট চার্টও ৷ মূলত চিঁড়ে-মুড়ি, শুকনো খাবার খেয়েই কাটান পশ্চিমবঙ্গের মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। করোনার প্রকোপ নিয়ন্ত্রণে ফের একবার সাধারণ মানুষের ওপর আস্থা রাখলেন মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়।
বুধবার (০১ এপ্রিল) নবান্নে সংবাদ সম্মেলনে তিনি ফের একবার বুঝিয়ে বললেন, এই পরিস্থিতিতে বাড়ি থেকে বেরনোর বিপদ। হাত জোড় করে বললেন, ‘ক’টা দিন ঘরে থাকুন। আড্ডা মারার সময় অনেক পাবেন।’
ভারতের অন্যান্য রাজ্যের মত পশ্চিমবঙ্গেও ক্রমশ বাড়ছে করোনা রোগীর সংখ্যা। দেশটির সরকারি হিসাব অনুযায়ী, এ রাজ্যে এখনও পর্যন্ত আক্রান্ত হয়েছেন ৩৭ জন। মৃত্যু হয়েছে ৩ জনের। অবশ্য বেসরকারি হিসাবে মৃতের সংখ্যা ৭। এই পরিস্থিতিতে ফের একবার রাজ্যবাসীকে বাড়ি থেকে না বেরনোর কাতর অনুরোধ করলেন মুখ্যমন্ত্রী মমতা।
এদিন মমতা বলেন, ‘আগামী ২ সপ্তাহ খুব গুরুত্বপূর্ণ। দয়া করে সরকারের নির্দেশ মেনে চলুন। রাস্তায় দাঁড়িয়ে আড্ডা মারা বন্ধ করুন। আড্ডা দেওয়ার অনেক সময় পাবেন। সামাজিক দূরত্ব মানতেই হবে। নইলে আমরা স্টেজ থ্রিতে চলে যাব।’
এদিন মুখ্যমন্ত্রী জানান, রাজ্যে বর্তমানে ৩১ জন করোনারোগী চিকিৎসাধীন। ৩ জন সেরে উঠে বাড়ি চলে গিয়েছেন। ৩ জনের মৃত্যু হয়েছে। তার মধ্যে ১ জনের মৃত্যু হয়েছে নিউমোনিয়ায়।
নবান্ন সূত্রের খবর, লকডাউনের এক সপ্তাহ পার করার পর থেকেই বহু জায়গায় মানুষের মধ্যে উদাসীনতা লক্ষ্য করা যাচ্ছে। অনেক জায়গায় কেউ করোনায় আক্রান্ত হননি বলে বিকেলে রাস্তার পাশে আড্ডায় বসে যাচ্ছে মানুষজন। সকালে বাজারে গিয়ে ভিড় করছেন।
মুখ্যমন্ত্রী সাবধান করে বলেন, ‘সেদ্ধ ভাত আর ডাল খান। এটা লাটসাহেবি দেখানোর সময় নয়।’
আরো পড়ুনঃ