সৈয়দপুরে মায়ের সম্পত্তি রক্ষায় ফেসবুকে স্ট্যাটাস , মামা পাঠালো ১৫ লক্ষ টাকার আইনি নোটিশ

নীলফামারী প্রতিনিধি।।

১৮১

সৈয়দপুর পৌরসভার ১১ নং ওয়ার্ডের নয়াবাজার এলাকার মৃত আব্দুল হাই এর ২ মেয়ে সাবানা খাতুন ও তারানা আহম্মেদ এর মায়ের সম্পত্তি ( ৩.৪৪) শতক জমি ভুয়া জাল দানপত্র তৈরি করে আপন ভাই আফতাব আলম মায়ের জমি দখল ও কোর্টের নিষেধাজ্ঞা অমান্য করে নির্বাণ কাজ চালিয়ে আসছে । জমি দখলে সার্বিক সহযোগিতার অভিযোগ উঠেছে ওয়ার্ডের কাউন্সিলর এরশাদ হোসেন পাপ্পুর বিরুদ্ধে ।

সম্পত্তি রক্ষা করতে সাবানা খাতুন এর ছেলে সালেহিন ইকবাল আইনের আশ্রয় নিলে তার উপর নারী নির্যাতনের মিথ্যা মামলা সহ বিভিন্ন মামলার হুমকি-ধমকি দিয়ে আসছে দীর্ঘদিন ধরে । এই জমির জের ধরে মিথ্যা মামলায় সালেহীন ইকবাল কে কারাগারেও যেতে হয় । মায়ের সম্পত্তি রক্ষায় ভূমি দখলদার মোহাম্মদ আফতাব আলম, শাহাব উদ্দিন, শাকিল আহমেদ এর অত্যাচারে অতিষ্ঠ হয়ে এলাকাবাসী রাজনৈতিক নেতৃবৃন্দ ও প্রশাসনের সহযোগিতা চেয়ে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম ফেসবুকে স্ট্যাটাস দেন সালেহিন ইকবাল ।

এরপর মামা আফতাব আলম তার সম্মানের ক্ষতি হয়েছে বলে তিন জনের নাম উল্লেখ করে ১৫ লক্ষ টাকার সম্মান হানির ক্ষতিপূরণ দাবিতে আইনি নোটিশ পাঠায় ভাগিনা সালেহিন ইকবালের কাছে।

অসহায় পরিবারের অভিযোগ আফতাব আলম তার নিজ পৈত্রিক সম্পত্তি ২২ শতক বিক্রি করে দিয়ে মায়ের দেয়া বোনের সম্পত্তি ৩.৪৪ শতক জমি স্থানীয় পৌরসভা কমিশনার এরশাদ হোসেন পাপ্পুকে সুকৌশলে ব্যবহার করে দখলে নেয়ার সর্বাত্মক চেষ্টা চালিয়ে আসছে । ওই সম্পত্তিতে কোনরূপ স্থাপনা নির্মাণে কোটের নিষেধাজ্ঞা থাকলেও নিষেধাজ্ঞা মানছে না আফতাব আলম । দীর্ঘদিন ধরে এই অবস্থা চলায় সাবানা খাতুন ও তারানা আহমেদ অসহায় হয়ে পড়েছে।

এ বিষয়ে সৈয়দপুর পৌরসভার মেয়র , রাকিবা আক্তার জাহান বেবি জানান , বিষয়টি আমি দেখছি কমিশনার পাপ্পুর সাথে কথা বলে আপনাদেরকে জানাবো সে এরকম করবে কেন । কারণ কি বের করার চেষ্টা করছি ।

তবে এই বিষয়ে এলাকায় নিন্দার ঝড় উঠেছে আফতাব আলমের বিরুদ্ধে ।এলাকা বাসীর দাবি মরহুম নাদিম আশরাফী আওয়ামী পরিবারের এক জন ত্যাগী নেতা ছিলেন তার পরিবারের সাথে বিএন পি নেতা ও ওয়ার্ড কাউন্সিলরের এরুপ আচরণ সত্যি হতাশা ও আশ্চর্যজনক ।

আরো দেখুনঃ
error: Content is protected !!