তিতাসে বসত ঘর পুরে ছাই, ১৫ লাখ টাকার ক্ষতি

তিতাস ( কুমিল্লা) প্রতিনিধি

কুমিল্লার তিতাস উপজেলার কলাকান্দি ইউনিয়নের কলাকান্দি গ্রামের মৃত মোজাফফর সওদাগর ছেলে রফিক সওদাগর (৪৫) এর একটি বসত ঘর আগুন লেগে পুরে ছাই হয়ে গেছে। এতে প্রায় ১০-১৫ লক্ষ টাকার ক্ষয়ক্ষতি সাধন হয়েছে বলে ক্ষতিগ্রস্থ পরিবার দাবি করেন। প্রাথমিকভাবে বৈদ্যুতিক শট সার্কিট থেকে আগুনের সূত্রপাত ঘটেছে বলে ধারনা করছেন প্রত্যক্ষদর্শীরা।

ক্ষতিগ্রস্থ বাড়ির মালিক রফিক সওদাগর জানান, সোমবার প্রতিদিনের মতোই সব কাজ শেষে রাতে ঘুমিয়ে পরি। হঠাৎ রাত আনুমানিক ২টায় বিকট শব্দে ঘুম ভাঙ্গলে চোখ খুলে দেখি ঘরে আগুন। পরে পানি দিয়ে আগুন নিভাতে চেষ্টা করলে মুহুর্তের মধ্যে আগুনের লেলিহান শিখা চারদিকে ছড়িয়ে পরে এবং ডাক চিৎকার শুনে আশপাশের লোকজন এসে ঘণ্টাব্যাপী চেষ্টা চালিয়ে আগুন নিভাতে সক্ষম হয়।

এছাড়াও রফিক সওদাগর কান্না জড়িত কণ্ঠে আরো বলেন, আমার সব শেষ। আগুনে আমার বাড়ি ও বাড়ির মালামাল সব পুড়ে চাই হয়ে গেছে। ঘরে থাকা স্বর্ন অলংকার, ফ্রিজ, টিভি, নগদ টাকা, আলমারি, খাটসহ প্রায় ১৫ লাখ টাকা ক্ষয়ক্ষতি হয়েছে। জীবনে এই ক্ষতি আর পূরণ হবার নয়।

ইউপি চেয়ারম্যান ইব্রাহিম সরকার বলেন, রাতে আগুন লাগার খবর পেয়ে সাথে সাথে লোকজন নিয়ে ঘটনাস্থলে যাই এবং সকলের সহযোগিতা আগুন নিভাতে সক্ষম হই। তবে অগ্নিকাণ্ডের প্রকৃত কারণ জানা না গেলেও ধারণা করা হচ্ছে বৈদুত্যিক সর্ট সার্কিট থেকে আগুনের সূত্রপাত হতে পারে। তিনি আগুনে পুড়ে সর্বস্ব হারানো পরিবারকে সরকারি ভাবে আর্থিক সহযোগিতা পাওয়ার ব্যবস্থা করে দেয়ার আশ্বাস দেন।

আরো দেখুনঃ
error: Content is protected !!