নীলফামারী চক্ষু হাসপাতালের চালকসহ নিহত ২ আহত ২০

নীলফামারী প্রতিনিধি।।

২৫১

নীলফামারী সৈয়দপুর-দিনাজপুর বাইপাস সড়ক নিয়ামতপুর মরিয়ম চক্ষু হাসপাতালের সামনে এই দুর্ঘটনা ঘটে। নিহতরা হলেন মরিয়ম চক্ষু হাসপাতালের অ্যাম্বুলেন্স চালক রংপুর বিভাগীয় শহরের পার্কপাড়া এলাকার মমতাজ আলীর ছেলে তহিদুল ইসলাম(৪০) ও দিনাজপুর জেলার কাহারোল উপজেলার মল্লিকপাড়া এলাকার মৃত ওমর আলীর ছেলে মঞ্জর আলী(৫৯)।

প্রত্যক্ষদর্শীরা জানান, ঠাকুরগাঁও থেকে বগুড়া যাওয়ার সময় ফাহিম এন্টারপ্রাইজ(ঢাকা মেট্রো জ-১৪-০১৯৪) বাসটি যাওয়ার সময় মরিয়ম চক্ষু হাসপাতালের অ্যাম্বুলেন্স চালক তহিদুল ইসলামকে চাপা দিলে ঘনটাস্থলে সে মারা যায়।

ঐ সময় বাসটি নিয়ন্ত্রণ হারিয়ে ফেললে সড়কের নিচে ধানক্ষেতে পড়ে যায়। এতে বাসের ভেতরে থাকা যাত্রী মঞ্জর আলী মারা যান। মরিয়ম চক্ষু হাসপাতালের ব্যবস্থাপক আব্দুল্লাহ আল ফারুক জানান, মহিদুল তিন বছর ধরে মরিয়ম চক্ষু হাসপাতালের অ্যাম্বুলেন্স চালাচ্ছে। গতমাসে এখানে যোগদান করে। ঘটনার সময় যাত্রীবাহী বাসের ধাক্কায় সে মারা যায়। মহিদুল দুপুরের খাবার শেষ অফিসে ফিরছিলো।

সৈয়দপুর থানার পরিদর্শক(তদন্ত) খায়রুল আলম জানান, দুর্ঘটনায় জড়িত বাসের চালক পালিয়ে গেছে। লাশ উদ্ধার করে থানায় নেয়া হচ্ছে। বেশ কিছু যাত্রী আহত হয়েছেন। খোঁজ খবর নেওয়া হচ্ছে তাদের। এ ব্যাপারে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে।

আয়েশা আক্তার/অননিউজ24

আরো দেখুনঃ
error: Content is protected !!