ফুটবল বিশ্বকাপের উন্মাদনায় ব্যস্ত সময় পার করছে নীলফামারীতে পোশাক তৈরীর কারিগররা

সুভাষ বিশ্বাস, নীলফামারী

৪৫

দ্যা গ্রেটেস্ট শো অন আর্থ ফুটবল বিশ্বকাপকে সামনে রেখে দর্জির দোকান ও দর্জি বাড়িগুলো তে ব্যস্ত সময় পার করছে পোশাক তৈরীর কারিগরেরা। কাপড়ের তৈরি বিভিন্ন দেশের পতাকা ফেস্টুন শোভা পাচ্ছে দোকানগুলোতে ।ফুটবল প্রেমীরা দূর দূরান্ত থেকে এসে অর্ডার দিয়ে নিজের পছন্দ মতন সাইজে বিভিন্ন দেশের পতাকা বানিয়ে নিচ্ছে।

দর্জি দোকানে ঝুলিয়ে রাখা আছে আর্জেন্টিনা, ব্রাজিল, জার্মানি, ফান্স, জাপান, ইংল্যান্ড, পূর্তগালসহ নানান দেশের জাতীয় পতাকা। মূলত ফুটবল বিশ্বকাপকে সামনে রেখে দর্জি হামিদ ইসলাম এইসব পতাকা তৈরি করছেন। এই চিত্রটি দেখলে বুঝা যায় ফুটবল বিশ্বকাপের উন্মাদনার হাওয়া বইছে নীলফামারীতে। সৈয়দপুর শহরের মক্কা হোটেলের সামনে ছোট একটি দর্জি দোকানে কাজ করছেন দর্জি হামিদ ইসলাম তৈরি করছেন পতাকা। তিনি জানান আমার মত প্রায় ২৫ থেকে ৩০ জন ব্যবসায়ী এ পতাকা তৈরীর কাজ করছে। আমরা ৬০ টাকা থেকে শুরু করে ৫শত টাকা পর্যন্ত পতাকা গুলো বিক্রি করছি। এর বাইরেও অনেকে নিজস্ব সাইজ অনুযায়ী বড় বড় পতাকা তৈরি করে নিচ্ছে যেগুলোর দাম দুই থেকে আড়াই হাজার টাকা পর্যন্ত। ফুটবল প্রেমী সকল দলের সমর্থক রয়েছেন। তারমধ্য আর্জেন্টিনা-ব্রাজিলের সমর্থকদের সংখ্যাটা একটু বেশি।
দ্যা গ্রেটেস্ট শো অন আর্থ ফুটবল বিশ্বকাপকে ঘিরে বাড়তি আয়ের আশায় তিনি ফুটবল দলগুলোর পতাকা বানিয়ে বিভিন্ন সমর্থকদের কাছে বিক্রি করছেন। শুধু হামিদ ইসলাম ই নয় লাইনের ধারের পাপ্পু,, রাজু,কামাল,সহ বেশ কয়েকজন দর্জিরা পতাকা বানিয়ে বিক্রি করছেন।
দর্জি পাপ্পু জানান শুধু এই শহরেই নয় আমাদের লোকেরা তৈরি পতাকা গুলো নীলফামারী ডোমার ডিমলা জলঢাকা কিশোরগঞ্জ সহ রংপুর জেলার তারাগঞ্জ,পাগলাপীর, দিনাজপুর জেলার পার্বতীপুর, চিনির বন্দর,ভুষির বন্দর,বদর গঞ্জ সহ বিভিন্ন উপজেলা ঘুরে ফেরি করে এসব পতাকা বিক্রি করছেন। এছাড়াও তৈরি করছেন বিভিন্ন দেশের জার্সি।

আরো দেখুনঃ
error: Content is protected !!