বগুড়া ডায়াবেটিক সমিতির উদ্যোগে বিশ্ব ডায়াবেটিস দিবস ২০২২ পালিত

৪১

বগুড়া ডায়াবেটিক সমিতির ব্যবস্থাপনায় যথাযোগ্য মর্যাদায় আজ ১৪ই নভেম্বর বিশ্ব ডায়াবেটিস দিবস-২০২২ পালন করা হয়েছে। এ বছরের প্রতিপাদ্য বিষয় হচ্ছে-
উরধনবঃবং: ঊফঁপধঃরড়হ ঃড় ঢ়ৎড়ঃবপঃ ঃড়সড়ৎৎড়ি অর্থাৎ “আগামীতে নিজেকে সুরক্ষায় ডায়াবেটিসকে জানুন”।

সকাল সাড়ে ৯টায় বর্ণাঢ্য র‍্যালী মধ্য দিয়ে দিনের কর্মসুচী শুরু হয়। বেলুন ও কবুতর উড়িয়ে র‍্যালীর উদ্বোধন করেন বগুড়া ডায়াবেটিক সমিতির সভাপতি এ্যাডঃ মকবুল হোসেন মুকুল ও সাধারণ সম্পাদক তৌফিকুর রহমান বাপ্পি ভান্ডারী। এসময় উপস্থিত ছিলেন সমিতির সহ-সভাপতি মো: আবুল কালাম আজাদ ও এবিএম জহুরুল হক, যুগ্ম সম্পাদক শাহ মো: আখতারুজ্জামান ডিউক, সাংগঠনিক ও দপ্তর সম্পাদক একেএম ফজলুল হক রেন্টু, কোষাধ্যক্ষ একেএম শামস উদ্দিন সিদ্দিকী, নির্বাহী সদস্য মো: আব্দুল্লাহেল কাফী, মো: শরিফুজ্জামান, তোফাজ্জল হোসেন, মো: শফিকুল ইসলাম (খোকন), মো: গোলাম কিবরিয়া(বাহার), মো: আব্দুল্লাহ আল রাজী, সমিতির আজীবন সদস্যবৃন্দ, হাসপাতালেরএক্সিকিউটিভ ডাইরেক্টর লে: কর্নেল (অব:) ডা: সৈয়দ আবতহী ও অন্যান্য চিকিৎসক,কর্মকর্তা-কর্মচারীবৃন্দ, ফার্মাসিউটিক্যালস ও সরবরাহকারী প্রতিষ্ঠানেরপ্রতিনিধিবৃন্দ ও আমন্ত্রিত গণ্যমান্য ব্যক্তিবর্গ। র‌্যালীটি বগুড়া ডায়াবেটিক সমিতি প্রাঙ্গণ থেকে বের হয়ে শহরের প্রধান প্রধান সড়ক প্রদক্ষিণ করে।
র‍্যালী শেষে ১০টায় নবাববাড়ীস্থ বগুড়া ডায়াবেটিক ও স্বাস্থ্যসেবা হাসপাতাল প্রাঙ্গনে “বিনামূল্যে ডায়াবেটিস নির্ণয়” ক্যাম্প শুরু হয়। ক্যাম্পে ডায়াবেটিস
সনাক্ত হওয়ার সাথে সাথে রোগীদের চিকিৎসা ও পরামর্শ প্রদান করা হয়েছে। ক্যাম্পে আনুমানিক ৫ শতাধিক মানুষ ডায়াবেটিস পরীক্ষার জন্য উপস্থিত হয়েছিলেন।
এদিকে সকাল সাড়ে ১০টায় হাসপাতালের হলরুমে বিশ্ব ডায়াবেটিস দিবসের আলোচনা সভায় শুভেচ্ছা বক্তব্য রাখেন সমিতির সভাপতি এ্যাড: মকবুল হোসেন মুকুল ও
সাধারণ সম্পাদক তৌফিকুর রহমান বাপ্পি ভান্ডারী। বিষয়ভিত্তিক বক্তব্য রাখেন হাসপাতালে চক্ষু বিশেষজ্ঞ ডা: মো: জাকিরুল ইসলাম, শিশু বিশেষজ্ঞ ডা: মো: আলী আশরাফ, মেডিকেল অফিসার ডা: নসরুল্লাহ কানন ও হাসপাতালের এক্সিকিউটিভ ডাইরেক্টর লে: কর্নেল (অব:) ডা:
সৈয়দ আবতহী। আলোচনা সভাটি সঞ্চালনা করেন হাসপাতালের নিউট্রিশন অফিসার ফারহানা সোহেনী ঐশি। এসময় উপস্থিত হয়েছিলেন সিভিল সার্জন অফিসের
প্রতিনিধি ডা: দিবাকর বসাক।

বগুড়া ডায়াবেটিক সমিতির বর্তমান নিবন্ধিত রোগীর সংখ্যা ১ লক্ষ ১৫ হাজারের অধিক। বছরে এই সংখ্যা প্রায় সাড়ে ৫ থেকে ৬ হাজার করে বৃদ্ধি পাচ্ছে। সমিতির ৩টি
কেন্দ্রে দৈনিক ৪০০-৪৫০ জন রোগীর চিকিৎসা দেয়া হচ্ছে। প্রতি মাসে বারডেমের সহযোগিতায় এই হাসপাতালের মাধ্যমে ১১০ জন অসহায় ও দুস্থ রোগীদের বিনামূল্যে
ইনসুলিন প্রদান করা হয়ে থাকে।

আলোচনা সভায় বক্তারা বলেন, শীঘ্রই ডায়াবেটিস সম্পর্কে গণসচেতনতা বৃদ্ধির জন্য পর্যায়ক্রমে বগুড়া সদরের সকল ওয়ার্ডে বিনামূল্যে চক্ষু ও ডায়াবেটিস নির্ণয় ক্যাম্প
শুরু করা হবে। অনিয়ন্ত্রিত ডায়াবেটিস হৃদরোগ, স্ট্রোক, কিডনী জটিলতা, অন্ধত্ব, অঙ্গহানি, পায়ের ইনফেকশন, দন্তরোগ ইত্যাদি রোগের ঝুঁকি বাড়ায়।
জাতীয় জনসংখ্যা গবেষণা ও প্রশিক্ষণ প্রতিষ্ঠান ‘নিপোর্ট (ঘরঢ়ড়ৎঃ)’-এর মতে দেশে ডায়াবেটিস রোগীর সংখ্যা ১ কোটিরও অধিক। সিডিআইসি’র তথ্যমতে সারা
দেশে প্রতিবছর ৬০০ শিশু-কিশোর ডায়াবেটিস রোগী হিসাবে নিবন্ধিত হচ্ছে। বিশে^ উচ্চহারে ডায়াবেটিস রোগী বৃদ্ধি পাওয়া ৩টি দেশের মধ্যে বাংলাদেশ একটি।
বর্তমানে বিশে^ ডায়াবেটিস রোগীর সংখ্যা ৪০ কোটি ছাড়িয়ে গেছে। তবে সনাক্তের বাহিরেও থেকে গেছে অনেক রোগী। ডায়াবেটিস জটিলতায় প্রতি বছর মারা
যাচ্ছে ১০ লাখেরও বেশী মানুষ।

বিশ্ব ডায়াবেটিস দিবস উপলক্ষ্যে হাসপাতালে সাড়ে আগত সাড়ে ৩ শত নিবন্ধি রোগীর রক্তের সুগার পরীক্ষার সাথে বিনামূল্যে কিডনী ফাংশন (ঈৎবধঃরহরহব) ও লিভার ফাংশন (ঝএচঞ) পরীক্ষা করা হয়।

আরো দেখুনঃ
error: Content is protected !!