মনোহরগঞ্জে কৃষক পিটিয়ে হত্যা, চেয়ারম্যান আসামি

কুমিল্লা প্রতিনিধি।।

মনোহরগঞ্জে কৃষক অযি উল্লাহ হত্যা মামলার আসামি লক্ষ্মণপুর ইউপি চেয়ারম্যান মহিন উদ্দিন চৌধুরী।

কুমিল্লার মনোহরগঞ্জে কৃষক অযি উল্লাহকে পিটিয়ে হত্যার ঘটনায় লক্ষ্মণপুর ইউনিয়ন পরিষদ চেয়ারম্যান মহিন উদ্দিন চৌধুরীসহ ২৮ জনের বিরুদ্ধে মামলা করা হয়েছে।মনোহরগঞ্জ থানায় সোমবার রাতে অযি উল্লাহর স্ত্রী শাহানারা বেগম বাদী হয়ে হত্যা মামলাটি করেন। এর আগে দুপুরে উপজেলার মড়হ গ্ৰামে জমি দখল করে রাস্তা নির্মাণের সময় বাধা দেয়ায় ৫০ বছর বয়সী অযি উল্লাহকে পিটিয়ে হত্যার অভিযোগ ওঠে। কৃষক অযি উল্লাহ মড়হ পশ্চিম পাড়ার বাসিন্দা ছিলেন।

মঙ্গলবার সন্ধ্যায় এসব তথ্য নিশ্চিত করেছেন মনোহরগঞ্জ থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মাহবুবুল করিম। তিনি বলেন, ‘হত্যার অভিযোগে আটজনের নাম উল্লেখ ও অজ্ঞাত পরিচায় ২০ জনসহ ২৮ জনের বিরুদ্ধে মামলার আবেদন করলে আমি তা গ্রহণ করি। অন্য আসামিরা হলেন, লক্ষ্মণপুর ইউপি চেয়ারম্যানের ভাই সালেহ আহাম্মদ, একই ইউনিয়নের মড়হ গ্রামের মো. রাজু, মো. ফারুক, মো. মহিন উদ্দীন, মো. সাব্বির, মো. আব্দুল হালিম, মো. হেলাল। আসামিদের গ্রেপ্তার অভিযানে নেমেছে পুলিশ।’

স্থানীয়রা জানান, মড়হ গ্রামে একটি সড়কের সম্প্রসারণ কাজ চলছে। সেখানে ভূমি অধিগ্রহণ ছাড়াই নিজের জমির ওপর রাস্তা করা হয় বলে অভিযোগ করেন অযি উল্লাহ। বিষয়টি মীমাংসার জন্য মড়হ পশ্চিম পাড়ায় লক্ষ্মণপুর ইউপি চেয়ারম্যান মইন তার দলবল নিয়ে যান। এ সময় অযিউল্লাহকে ডেকে নেন চেয়ারম্যান।

এলাকার লোকজন জানান, চেয়ারম্যান তাকে জায়গাটি ছেড়ে দিতে বলেন। অযি উল্লাহ এতে রাজি না হওয়ায় চেয়ারম্যানের লোকজন তাকে মারধর করেন। গুরুতর আহত অবস্থায় হাসপাতালে নেয়ার পথে মারা যান তিনি। ঘটনার বিষয়ে জানতে লক্ষ্মণপুরের চেয়ারম্যান মইন উদ্দিন চৌধুরীর মোবাইল ফোনে একাধিকবার কল করা হলেও তিনি রিসিভ করেননি। মঙ্গলবার সন্ধ্যায় ময়নাতদন্ত শেষে পারিবারিক কবরস্থানে অযি উল্লাহকে সমাহিত করা হয়।

আহসানুজ্জামান সোহেল/অননিউজ24।।

আরো দেখুনঃ
error: Content is protected !!