সোনাগাজীতে দোকানিকে কুপিয়ে স্বর্ন ডাকাতির ঘটনায় জিজ্ঞাসাবাদের জন্য আটক ৩

জাবেদ হোসাইন মামুন, সোনাগাজী (ফেনী) প্রতিনিধি

৪৭

ফেনীর সোনাগাজীতে দিনে দুপুরে দোকানিকে কুপিয়ে স্বর্ন দোকানে ডাকাতির ঘটনার দুই দিনেও মামলা হয়নি। আহত দোকানি অর্জুন ভাদুরীর মাথায় রোববার রাতে সফল অস্ত্রপচার করা হয়েছে। তিনি চট্রগ্রাম ইম্প্রিরিয়াল এপোলো হাসপাতালে আইসিইউতে চিকিৎসাধীন রয়েছেন। পুলিশ জিজ্ঞাসাবাদের জন্য বেলাল হোসেন সৌরভ, সিরাজুল ইসলাম ও মো. মোস্তফা নামে তিনজনকে আটক করেছে। ঘটনাস্থলে গিয়ে র‍্যাব, পুলিশ, পিবিআই, সিআইডি ও ডিবি পুলিশ সহ একাধিক গোয়েন্দা সংস্থার লোকজন ক্রাইম সিন সংগ্রহ করেছেন। আইন শৃঙ্খলাবাহিনীর একাধিক সংস্থা ঘটনাটি ছায়া তদন্ত করেছেন বলে একটি নির্ভরযোগ্য সূত্র জানিয়েছেন। সোমবার সকালে সোনাগাজী উপজেলা আ.লীগের সভাপতি অধ্যাপক মফিজুল হক, সাধারণ সম্পাদক, পৌর মেয়র অ্যাড. রফিকুল ইসলাম খোকন, ফেনী জেলা জুয়েলারী সমিতির সভাপতি ইসমাইল হোসেন খোকন, সাধারণ সম্পাদক গোলাম ফারুক বাচ্চু, সোনাগাজী উপজেলা জুয়েলারী সমিতির সভাপতি বেলায়েত হোসেন, সাধারণ সম্পাদক নাসির উদ্দিন, চরদরবেশ ইউনিয়ন আ.লীগের সভাপতি মাস্টার সাহাব উদ্দিনের নেতৃত্বে ব্যবসায়ীরা জমাদার বাজারে বিক্ষোভ মিছিল শেষে ঘটনায় জড়িতদের দ্রুত গ্রেফতার করে শাস্তির আওতায় আনার দাবি জানান।

প্রসঙ্গত; রোববার দুপুরে উপজেলার চরচান্দিয়া ইউনিয়নের জমাদার বাজারের অর্জুন জুয়েলার্সের মালিক অর্জুন চন্দ্র ভাদুরী (৫২) কে কুপিয়ে, শোকেইস ভাঙচুর করে ও চাবি ছিনিয়ে লকার খুলে প্রায় ৮০ লাখ টাকার স্বর্ন লুটে নেয়। এসময় ডাকাতদের ছোড়া হাত বোমার আঘাতে আহত হন শহীদুল ইসলাম (৫৫) নামে স্থানীয় এক বাসিন্দা। সোনাগাজী মডেল থানার ওসি মুহাম্মদ খালেদ হোসেন দাইয়্যান বলেন, ঘটনায় জড়িতদের চিহ্নিত করে গ্রেফতারের চেষ্টা অব্যাহত রয়েছে।

আরো দেখুনঃ
error: Content is protected !!