হিলিতে অর্ধেকে নেমেছে দেশীয় কাচামরিচের দাম

হিলি প্রতিনিধি।।

১১০

বাজারে কাচামরিচ কিনতে আসা সিদ্দিক হোসেন বলেন,পাচ দিন আগে যে কাচামরিচ কিনেছিলাম ১শ ২০ থেকে ৩০টাকা কেজি এখন সেই কাচামরিচের দাম নেমে এসেছে ৫০ থেকে ৬০টাকায়। আগের চেয়ে কাচামরিচের দাম কমায় আমাদের জন্য সুবিধা হয়েছে, সাশ্রয় হয়েছে টাকা কম লাগছে, যার জন্য কিনতে পারছি। আর ভারতীয় কাচামরিচের চেয়ে আমাদের দেশীয় কাচামরিচের মান ভালো স্বাদ ভালো যার কারনে আমরা দেশীয় কাচামরিচ কিনতে বেশী পছন্দ করি।

বেশ কয়েকদিন ধরে কাচামরিচ ঝাজ ছড়ানোর পরে দিনাজপুরের হিলি স্থলবন্দর দিয়ে ভারত থেকে কাচামরিচ বন্ধ থাকলেও হিলির বাজারগুলোতে দেশীয় কাচামরিচের দাম কমেছে কেজিতে ৫০ থেকে ৬০ টাকা। পাচদিন পুর্বেও প্রতি কেজি দেশীয় কাচামরিচ ১শ থেকে ১শ ২০টাকা কেজি দরে বিক্রি হলেও বর্তমানে তা কমে ৫০ থেকে ৬০টাকায় নেমেছে, দাম একেবারে অর্ধেকে নেমেছে। এদিকে কাচামরিচের দাম কমায় খুশি নিন্ম আয়ের মানুষজন।

বাজারে কাচামরিচ কিনতে আসা সিদ্দিক হোসেন বলেন,পাচ দিন আগে যে কাচামরিচ কিনেছিলাম ১শ ২০ থেকে ৩০টাকা কেজি এখন সেই কাচামরিচের দাম নেমে এসেছে ৫০ থেকে ৬০টাকায়। আগের চেয়ে কাচামরিচের দাম কমায় আমাদের জন্য সুবিধা হয়েছে, সাশ্রয় হয়েছে টাকা কম লাগছে, যার জন্য কিনতে পারছি। আর ভারতীয় কাচামরিচের চেয়ে আমাদের দেশীয় কাচামরিচের মান ভালো স্বাদ ভালো যার কারনে আমরা দেশীয় কাচামরিচ কিনতে বেশী পছন্দ করি।

অপর ক্রেতা নুর ইসলাম বলেন, কয়েকদিন আগে কাচামরিচের কেজি ছিল ১শ ২০ থেকে ৪০/৫০টাকা পর্যন্ত ছিল এখন ৫০ থেকে ৬০টাকার মধ্যে কাচামরিচ পাচ্ছি। বাজারে তো সবজিনিসের দাম আকাশচুম্বি সেখানে কাচামরিচের দাম কমায় আমাদের মতো সাধারন মানুষদের সুবিধাই হচ্ছে। আর দাম কমার কারনে একটু বেশী পরিমানে কিনতেছি আগে যেখানে দাম বেশী থাকার কারনে আড়াইশো গ্রাম কিনেছি এখন দাম কমার কারনে সেখানে হাফ কেজি বা ১কেজি কাচামরিচ কিনতেছি।

হিলি বাজারের কাচামরিচ বিক্রেতা বিপ্লব হোসেন ও বাবলু শেখ বলেন, কিছুদিন আগে অতিরিক্ত গরম ও বৃষ্টির কারনে কাচামরিচের ফুল নষ্ট হয়ে যাওয়ার কারনে দেশের বিভিন্ন অঞ্চলে কাচামরিচের উৎপাদন ব্যাহত হয়। এর ফলে বাজারে দেশীয় কাচামরিচের সরবরাহ কমায় দাম উদ্ধমুখি হয়ে যায়। পরবর্তীতে ভারত থেকে কাচামরিচ আমদানি শুরু হয়।

তবে এখন আবহাওয়া ভালো থাকায় ও শীতের ভাব পড়ায় কাচামরিচের উৎপাদন ভালো হচ্ছে যার কারনে বাজারে দেশীয় কাচামরিচের সরবরাহ বেড়েছে। আগে হাটে কাচামরিচ এক থেকে দেড়শো মন আমদানি হলেও বর্তমানে সরবরাহ বাড়ার কারনে বর্তমানে হাটে আমদানি হচ্ছে দুই থেকে আড়াইশো মন কাচামরিচ যার কারনে সরবরাহ বাড়ায় দাম কমছে।

পুজার কারনে ১১ সেপ্টেম্বর থেকে বন্দর দিয়ে কাচামরিচর আমদানি বন্ধ থাকলেও দেশীয় কাচামরিচের সরবরাহ বাড়ায় এর কোন প্রভাব পড়েনি উল্টো দাম আরো কমেছে। কয়েকদিন আগে বাজারে দেশীয় কাচামরিচের দাম ছিল ১শ থেকে ১শ ২০টাকা কেজি এখন সেই কাচামরিচ বিক্রি করতেছি ৫০ থেকে ৬০টাকা কেজি।

সাইফ/ অননিউজ24

আরো দেখুনঃ
error: Content is protected !!